Monir
প্রকাশ ২৬/০১/২০২২ ০৮:৩৪এ এম

Accident: অরক্ষিত রেলক্রসিংয়ে ট্রেনের ধাক্কায় চার নারী নিহত

Accident: অরক্ষিত রেলক্রসিংয়ে ট্রেনের ধাক্কায় চার নারী নিহত
ad image
নীলফামারীর সদর উপজেলায় অরক্ষিত রেলক্রসিংয়ে ট্রেনের ধাক্কায় ইজিবাইকযাত্রী চার নারী নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন অন্তত পাঁচজন।

বুধবার উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের দারোয়ানি এলাকার রেলক্রসিংয়ে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের দারোয়ানি এলাকার ধনীপাড়ার আশরাফ আলীর স্ত্রী শেফালী বেগম (৩৫), একই এলাকার মোশাররফ হোসেন বদির স্ত্রী রুমা আকতার (২৫), আরমান হোসেনের স্ত্রী মিনারা আকতার (২২) ও উপজেলার কোরানীপাড়ার বেলাল হোসেনের স্ত্রী ছায়া বানু (২৬)। নিহতরা সবাই উত্তরা ইপিজেডের শ্রমিক বলে জানা গেছে।

এ দুর্ঘটনায় আহতরা হলেন— ইজিবাইকচালক আপন হোসেন, নাজমিন আকতার, মিনা আকতার, রওশন আরা ও রোমানা আকতার। এদের সবার বাড়ি দারোয়ানী এলাকায়।

জানা যায়, খুলনা থেকে ছেড়ে আসা সীমান্ত এক্সপ্রেস সকালে সৈয়দপুর হয়ে চিলাহাটি যাওয়ার পথে সোনারায় ইউনিয়নের টেক্সটাইল ঘুন্টি শখেরবাজার রেলক্রসিং নামক স্থানে আসে। এ সময় ওই রেলক্রসিং পার হতে গেলে একটি যাত্রীবাহী অটোরিকশাকে ধাক্কা দেয় চলন্ত ট্রেনটি।

এতে অটোরিকশার ৯ যাত্রীর মধ্যে তিন নারী ঘটনাস্থলেই মারা যান। স্থানীয়রা ছয়জনকে উদ্ধার করে নীলফামারী সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে আরও এক নারীর মৃত্যু হয়।

সৈয়দপুর রেলওয়ে জেলা থানার ওসি আব্দুর রহমান বিশ্বাস জানান, কুয়াশার কারণে ইজিবাইকচালক ট্রেন দেখতে পাননি। এ কারণে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে থাকতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে বলে জানান তিনি।

সোনারায় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম শাহ জানান, ঘন কুয়াশার কারণে এ দুর্ঘটনাটি ঘটতে পারে। তা ছাড়া এ রেলপথে অরক্ষিত রেলক্রসিং থাকায় দিন দিন দুর্ঘটনার সংখ্যা বাড়ছে।

শেয়ার করুন

ad image

সম্পর্কিত সংবাদ