Md.Rashedul Islam - (Lalmonirhat)
প্রকাশ ১৩/১১/২০২১ ০৭:৫৫এ এম

UP election: কালীগঞ্জে ইউনিয়ন পরিষদ সাধারণ নির্বাচন ২০২১ উপলক্ষে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের নিয়ে নির্বাচনী আচরণ

UP election: কালীগঞ্জে ইউনিয়ন পরিষদ সাধারণ নির্বাচন ২০২১ উপলক্ষে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের নিয়ে নির্বাচনী  আচরণ
ad image
আগামী ২৮ নভেম্বর লালমনিরহাটের কালীগঞ্জে তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।সেলক্ষে উপজেলা নির্বাচন কার্যালয়ের আয়োজনে ইউনিয়ন পরিষদ সাধারণ নির্বাচন ২০২১ উপলক্ষে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীদের নিয়ে নির্বাচনি আচরণ বিধি ও আইন শৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

শনিবার বিকাল ৩ ঘটিকায় মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক করিম উদ্দিন আহমেদ অর্ডিটরিয়ামে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আব্দুল মান্নানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন মোঃ আবু জাফর,জেলা প্রশাসক, লালমনিরহাট,বিশেষ অতিথি ছিলেন, আবিদা সুলতানা বিপিএম,পিপিএম, পুলিশ সুপার, লালমনিরহাট, ইসরাত জাহান ছনি নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট, মোঃ মঞ্জুরুল হাসান, জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা,লালমনিরহাট, তাপস সরকার,সহকারি পুলিশ সুপার,বি- সার্কেলসহ রিটানিং কর্মকর্তাবৃন্দ।

সভা শুরুতে উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মাহবুবু রহমান প্রজেক্টরের সাহায্য আচরনবিধি প্রদর্শণসহ বক্তব্য প্রদান করেন। তিনি ৩১ টি আচরণবিধি উপস্থাপন করেন। উপজেলার ৮টি ইউনিয়নের ৫৪ জন প্রার্থী, সংরক্ষিত সদস্য ও সাধারণ সদস্য প্রার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

বক্তব্য রাখেন, তুষভান্ডার ও দলগ্রাম ইউনিয়ননের দায়িত্বে উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা মোঃ সায়েদুল মোফাচ্ছালীন,মোঃ মঞ্জুরুল হাসান,জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা লালমনিরহাট,তিনি বলেন চেয়ারম্যান প্রার্থীরা ১ টি গাড়ি, সংরক্ষিত সদস্যরা ১টি গাড়ি ব্যবহারের সুবিধা পাবেন। কিন্তু কোন সদস্য গাড়ি ব্যবহারের সুযোগ ব্যবহারের সুবিধা টাবেন না।পুলিং এজেন্ট ভোটের আগের দেন প্রিজাইডিং কর্মকর্তাদের কাছে জমা দিতে হবে। কোনক্রমে ভোটগ্রহন শুরুর পর এজেন্ট এলাউ হবে না।

পুলিশ সুপার বলেন, পুলিশ বা প্রশাসনকে প্রতিপক্ষ ভাববেন না।সাধারণ মানুষের জীবনকে বিষিয়ে দিবেন না।আপনারা নিজেই, সমর্থক, কর্মীদের সংযত রাখুন। সামনে এসএসসি পরীক্ষা সে ক্ষেত্রে মাইক জোরে বাজাবেন না। ভোটের আগের দিন থেকে মটর সাইকেল, অটোসহ সকল যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে। গুজোবে কান দিবেন না। বারবার মিথ্যা তথ্য সরবরাহ করে পরিস্থিতি ঘোলাটে করার চেষ্টা করবেন না।

রাষ্ট্রকে চ্যালেঞ্জ করে কেউ টিকে থাকতে পারবেন না।ভোটের ব্যালট বাক্সসহ সরঞ্জামাদি ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করবেন না।বিজয় মিছিল করা যাবে না। রাষ্ট মহাপরিক্রমশালী রাষ্ট্রকে সহযোগীতা করেন।

জেলা প্রশাসক বলেন,নির্বাচনকে শান্তিপূর্ণ ও সুষ্ঠু ভাবে সম্পন্ন করতে আপনাদের সহযোগীতা করতে হবে। ভোটের মাধ্যমে নির্বাচিত হতে হবে। সেটা সরকার নিশ্চিত করতে আমরা কাজ করতে চেষ্টা করছি। প্রশাসন সম্পু্র্ণ নিরপেক্ষ থাকবে। টাকা দিয়ে ভোট কেনার চেষ্টা করবেন না। কোন বেআইনি কাজে লিপ্ত থাকবেন না। কেউ যদি রাষ্ট্রকে চ্যালেঞ্জ করতে চায় তাহলে প্রশাসন কঠোর হস্তে দমন করবে।

প্রার্থীদের মধ্যে প্রশ্ন করেন চেয়ারম্যান প্রার্থী ফরহাদ হোসেন প্রশ্ন করেন ব্যালট বাক্স কখন কেন্দ্রে যাবে?

সাজেদা জামান বলেন, আমার প্রচারনে বাধা দেয়া হয়েছে। লিখিতভাবে অভিযোগ করবো।

আতাউর রহমান বলেন, মহিলা বুথে পুরুষ এজেন্ট নিয়োগ দেয়া যাবে কি?।

জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, সদস্য সংরক্ষিত ও চেয়ারম্যানদের ফলাফল এক সাথে দেয়ার দাবি জানান।

সভাপতি বলেন, আগামী নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন করতে সকলের সহযোগীতা কামনা করেন।

শেয়ার করুন

ad image

সম্পর্কিত সংবাদ